Breaking News
Home / সারাদেশ / বিমানে প্রকাশ্যে সঙ্গম করল প্রেমিক-প্রেমিকা যা দেখে অবাক যাত্রীরা !! তারপর যা হল
Loading...

বিমানে প্রকাশ্যে সঙ্গম করল প্রেমিক-প্রেমিকা যা দেখে অবাক যাত্রীরা !! তারপর যা হল

বিমানে প্রকাশ্যে সঙ্গম করল প্রেমিক-প্রেমিকা যা দেখে অবাক যাত্রীরা !! তারপর যা হলবিমানে প্রকাশ্যে সঙ্গম করল প্রেমিক-প্রেমিকা যা দেখে অবাক যাত্রীরা !! তারপর যা হলবিমানে প্রকাশ্যে সঙ্গম করল প্রেমিক-প্রেমিকা যা দেখে অবাক যাত্রীরা !! তারপর যা হলবিমানে প্রকাশ্যে সঙ্গম করল প্রেমিক-প্রেমিকা যা দেখে অবাক যাত্রীরা !! তারপর যা হলবিমানে প্রকাশ্যে সঙ্গম করল প্রেমিক-প্রেমিকা যা দেখে অবাক যাত্রীরা !! তারপর যা হলবিমানে প্রকাশ্যে সঙ্গম করল প্রেমিক-প্রেমিকা যা দেখে অবাক যাত্রীরা !! তারপর যা হলবিমানে প্রকাশ্যে সঙ্গম করল প্রেমিক-প্রেমিকা যা দেখে অবাক যাত্রীরা !! তারপর যা হলবিমানে প্রকাশ্যে সঙ্গম করল প্রেমিক-প্রেমিকা যা দেখে অবাক যাত্রীরা !! তারপর যা হলবিমানে প্রকাশ্যে সঙ্গম করল প্রেমিক-প্রেমিকা যা দেখে অবাক যাত্রীরা !!

সঙ্গমের সময় মেয়েদের কোনন বিষয়ে নজর থাকে ছেলেদের?

সঙ্গমে সঙ্গী খুশি থাকুন, এ হয়তো সকলেই চান। তার জন্য নানা উপায়, আয়োজন। বিভিন্ন পদ্ধতির অবলম্বন। কিন্তু সেই উপাচার ছাড়িয়েও হয়তো অন্য কিছুই সঙ্গীর মন টেনে নেয়। নজর কেড়ে নেয়। অন্তত বিভিন্ন সমীক্ষা সেরকম ইঙ্গিতই দিচ্ছে।

পুরুষ সঙ্গীকে খুশি করতে মহিলারা বহু সাজগোজ করেন। লিপস্টিক থেকে নেলপলিশে কিংবা মেকআপে মোহময়ী হয়ে উঠতে চান। কিন্তু সঙ্গমের সময় সত্যিই কি সেদিকে খেয়াল রাখেন পুরুষরা? উত্তর, না। তাহলে কোনদিকে পুরুষদের নজর থাকে?

বিভিন্ন সমীক্ষা থেকে পাওয়া তথ্য অনুযায়ী, পুরুষরা কখনওই মহিলা সঙ্গীর সাজগোজকে সঙ্গমের সময় মাথায় রাখেন না। বরং তাঁরা দেখতে চান সঙ্গম প্রক্রিয়ায় মহিলা সঙ্গীও সমানভাবে উত্তেজিত হয়ে উঠছেন কিনা। পুরুষের ঠিক যতটা আগ্রহ, মহিলাও ততটা আগ্রহী কিনা, তা পরখ করে দেখে নেন তাঁরা। আর তার কিছু মাপকাঠি আছে। কীরকম?

যেমন পুরুষরা দেখেন, শুধু তাঁরাই আগ্রহ দেখাচ্ছেন নাকি সঙ্গিনীও আগ্রহী হয়ে উঠছে? এ জিনিস বুঝতে ছোটখাটো কয়েকটি জিনিসের দিকে নজর রাখেন তাঁরা। যদি সঙ্গমের জন্য নারীও আগ্রহী হন, তাহলে তাঁরা নিজেরাই কিছু কাজ করেন। পুরুষকে সাহায্য করেন। পুরুষকে বিশ্রাম দিয়ে সঙ্গমের শারীরিক প্রক্রিয়ার দায়িত্ব তাঁরাও পালন করেন। তাতেই বোঝা যায় আগ্রহ কোন তরফে ঠিক কতটা।

সঙ্গমে শিৎকারের দিকে নজর থাকে পুরুষদের। সচেতনভাবে না হলেও অবচেতনে এই শিৎকার ধ্বনি তাঁদের জাগিয়ে তোলে। তবে পর্নছবি দেখে অনেকেই ভুল ধারণা নিয়ে থাকেন। বিকট শব্দ বা শব্দে উচ্চকিত করা নয়। সঠিক শিৎকার এবং শিৎকারের সময় নারীর মুখ থেকে বেরিয়ে আসা যথাযথ শব্দই পুরুষকে সংকেত দেয় যে, সঙ্গম নারীর কাছেও উপভোগ্য হয়ে উঠেছে।

শ্যাম্পু হোক বা পারফিউম, যে কোনও গন্ধই পুরুষের কাছে আকর্ষণীয়। তবে তাঁরা আরও বেশি পছন্দ করেন সঙ্গিনীর নিজস্ব গায়ের গন্ধ। সঙ্গমের সময় এদিকেও নজর দেন তাঁরা।

সঙ্গম চলাকালীন সঙ্গিনীর চোখের দিকে নজর থাকে পুরুষদের। সঙ্গিনী চোখ বন্ধ করে আছেন, নাকি গভীর ভালবাসার দৃষ্টিতে পুরুষকে দেখছেন তা খেয়াল করেন পুরুষরা। এবং এই দৃষ্টি কী বোঝাতে চাইছে তা আঁচ করার চেষ্টা করেন তাঁরা।

সঙ্গিনীর নিঃশ্বাসের ওঠাপড়াও নজরে রাখেন পুরুষরা। যথার্থ উত্তেজিত হলে বা সঙ্গম উপভোগ্য হলে শ্বাস-প্রশ্বাসের মাত্রা বেড়ে যায়। তা পুরুষদের সংকেত দেয় যে সঙ্গিনী খুশি হচ্ছেন।

সঙ্গমের সময় পুরুষরা যা করছেন, তার প্রতিক্রিয়ায় মহিলারা কী করছেন সেদিকেও চোখ থাকে পুরুষের। এই প্রতিক্রিয়াই বলে দেয় সঙ্গম একতরফা কিনা। এরকমই ছোটখাটো জিনিস খেয়াল করে পুরুষরা বুঝে নেন একজন মহিলা সঙ্গমে আদৌ খুশি হচ্ছেন, বা আগ্রহী হয়েছেন কিনা। অন্যথায় হাজার সাজগোজও সঠিক বার্তা পৌঁছে দিতে পারে না।

Loading...